Breaking News
Home / শিল্প ও সাহিত্য / প্রাপ্তি অপ্রাপ্তিতে জীবনের রং পরিবর্তন- হামিদা ইয়াসমিন নিশা

প্রাপ্তি অপ্রাপ্তিতে জীবনের রং পরিবর্তন- হামিদা ইয়াসমিন নিশা


প্রাপ্তি অপ্রাপ্তিতে জীবনের রং পরিবর্তন….

জীবনের রং বদলে বেশিরভাগ মানুষই সাজাপ্রাপ্ত।তবুও মনের কোনে একরাশ আশা নিয়ে দিনানিপাত করে যায়।হয়তো একসময় জীবনের সমস্ত কালো মেঘ সরিয়ে লাল সূর্য্যটা দেখা দিবে।সমস্ত ক্লান্তিকে ধুয়ে মুছে দিয়ে সুখের পরশে জীবনটাকে রাঙিয়ে দেবে।জীবন থেমে থাকে না প্রাপ্তি অপ্রাপ্তিতে চলতে থাকে।সময়ের ব্যবধানে অনেককিছু ঘটে যায় যা কল্পনারও বাহিরে থাকে,জীবন কখনই একতরফা চলে না।

সময়ের সাথে সাথে অনেকগুলো রং পরিবর্তন করে আর এই পরিবর্তনটা মাঝে মাঝে এমনভাবে আসে কখনোও আশার চেয়েও বেশি কিছু দিয়ে দেয় আবার কখনোও অপ্রত্যাশিত কিছু ঘটে যায় যা ভিতর থেকে নিজেকে চূর্ণ বিচূর্ণ করে ফেলে।

জীবনের সবচেয়ে প্রিয় মানুষ যার না থাকাটা মেনে নেওয়া নিজেকে ভিতর থেকে মেরে ফেলছে তাকে ছাড়াও দিব্যি এখনও নিশ্বাস নিচ্ছি,কল্পনাও করিনি আব্বু ছাড়া বেঁচে থাকতে হবে আমাকে,সময়ের এই পরির্বতনে একমাএ স্মৃতিগুলো নিয়েই বেঁচে থাকা।

স্মৃতিরা আছে বলেই এখনও বেঁচে আছি।যদি কোনো কিছু চাওয়ার বা ফিরে পাওয়ার অপশন পেতাম তাহলে অতীতকে ফিরে পেতে চাই।যে অতীতে আছে প্রাপ্তির ছড়াছড়ি।আব্বু আম্মুর সাথে আমার কাটানো দিনগুলো।হ্যা খুব খুব করে চাই।মাঝে মাঝে সময়ের এই পরিবর্তন মেনে নিতে পারিনা,কোনওভাবেই পারিনা।

জীবনের প্রতিটি পদে পদে যাকে প্রয়োজন ,যার প্রয়োজনীয়তা কেউ পূরন করতে পারবে না তাকে ছাড়া জীবনের উত্থান পতনের আগামীর পথ আমি কীভাবে চলব?আমার পৃথিবীটাই অসম্পূর্ণ আব্বু ছাড়া।আমি চাইনা পৃথিবীর কোনো মেয়ের আব্বুহীন জীবন কাটুক।আমার মতো রাতের নির্ঘূম নিস্তব্ধ সময়ে আকাশের দিকে তাকিয়ে অঝোর ধারায় কাঁদতে না থাকুক। এ কান্না শুধু পরম শ্রদ্ধার, নির্ভরতার হাতকে ধরার আকুতি থাকে।মুহূর্তটা বড্ড একাকীত্বের..বাবা আর মেয়ের শক্ত,আবেগপ্রবণ,অপ্রকাশিত ভালোবাসা না হয় স্মৃতিতে বেঁচে থাকুক।আব্বুকে নিয়ে সৃষ্টিকর্তার সাথে আমার সিজদায় কথা হয়।জীবনভর এই কথোপকথন চালিয়ে যাব।জীবনের শেষ মোনাজাত পর্যন্ত থাকবে রাব্বির হাম হুমা কামা রাব্বায়ানি সাগীরা।

About banglaparisworld

Check Also

সুরমা : সিলেটের নেকলেস

বাংলা প্যারিস ওয়ার্ল্ড: ২৫/০১/২০২০ সুরমা : সিলেটের নেকলেস ফায়সাল আইয়ূব পৃথিবীর সব বড় শহর-নগর-বন্দর কোনও …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

অনলাইন ভোট

এখন মানুষ পত্রিকার চেয়ে অনলাইনে খবর পরতে বেশি পছন্দ করে। আপনি কি এ বিষয়টি সমর্থন করেন ?